গোপালপুরে গ্রাহকদের ১২ লাখ টাকা নিয়ে কোম্পানি উধাও

0

নিজস্ব প্রতিনিধি, গোপালপুর : টাঙ্গাইলের গোপালপুরে দেড় শতাধিক গ্রাহককে স্বল্প সুদে ঋণ সুবিধা দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ‘যমুনা ফাউন্ডেশন’ নামের একটি হায় হায় প্রতিষ্ঠান প্রায় ১২লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়ে মঙ্গলবার গা-ঢাকা দিয়েছে। টাকা ফেরত পেতে শুক্রবার সকালে ক্ষতিগ্রস্ত গ্রাহকরা বিক্ষোভ প্রদর্শন করে।

এদিকে জানা যায়, পিকেএসএফের আর্থিক সহায়তার ব্যানারে শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও ঋণ কর্মসূচির আওতায় আর্থসামাজিক উন্নয়ন প্রকল্প ‘যমুনা ফাউন্ডেশন’ সূতীবাজার শাখা নামে একটি প্রতিষ্ঠান স্বল্প সুদে ঋণ সুবিধা দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে টাঙ্গাইলের গোপালপুর পৌর শহরের বিভিন্ন এলাকা, মির্জাপুর, আলমনগর ও হেমনগর ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামের ঋণ গ্রহণে আগ্রহী দেড় শতাধিক গরিব ও দুস্থ মানুষের কাছ থেকে নির্ধারিত ফরমে ঋণ প্রস্তাব গ্রহণ করে। এককালীন জমাকৃত টাকার বিপরীতে ১০ গুণ ঋণ প্রদানসহ নানামুখী সুযোগ-সুবিধার মিথ্যা প্রলোভনে গ্রাহক সৃষ্টি এবং একাধিক বিকাশ হিসাব নম্বরে ও নগদ গ্রহণের মাধ্যমে এককালীন ওই টাকা সংগ্রহ করে।

শুক্রবার সকালে সূতী পলাশ গ্রামে গেলে দেখা যায়, ঋণ গ্রহণে আগ্রহী টাকা জমাদানকারী হাফিজা, জোসনা, সখিনা, হাফিজা, খোজেদা, রহিম বাদশা, দুললু, শফিকুল, সুজনসহ অর্ধশত নারী-পুরুষ শহুর উদ্দিনের বাড়ির সামনের রাস্তায় সংগঠনের কর্মকর্তাদের ফিরে আসার পথ চেয়ে অপেক্ষা করছে।

বাড়ির মালিক শহুর উদ্দিন  জানান, ‘শর্তানুয়ায়ী মঙ্গলবার বিকালে সংগঠনের কর্মকর্তাদের জাতীয় পরিচয়পত্র, ফাউন্ডেশনের বৈধ কাগজপত্র, সরকারের অনুমতিসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখিয়ে চুক্তিনামা হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বিকাল হওয়ার আগেই তারা পালিয়েছে।’

Comments

comments

Share.

Leave A Reply