ঢাকা মঙ্গলবার, নভেম্বর ২০, ২০১৮

Mountain View



সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের উপরে নির্যাতনের প্রতিবাদে ঘাটাইলে জাতীয় হিন্দু মহাজোটের মৌন মিছিল ও মানবন্ধন

Print Friendly, PDF & Email

মোঃ আরিফ খান, ঘাটাইল (টাঙ্গাইল) সংবাদাতা : দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দেশব্যাপি সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের উপরে নির্যাতন, লুন্ঠন, নারী ধর্ষন, জ্বালা-পোড়াও এবং মন্দিরে হামালার প্রতিবাদে এবং তাদের বিচারের দাবীতে আজ বুধবার সকাল ১১ ঘটিকার সময় ঘাটাইল উপজেলায় বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট ও বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু ছাত্র ও যুব পরিষদের উদ্যোগে মৌন মিছিল, মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

উক্ত মৌন মিছিল ও মানববন্ধনে একাত্বতা প্রকাশ করে ঘাটাইল মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ড কাউন্সিল, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড কাউন্সিল এবং ঘাটাইলের বিভিন্ন প্রগতিশলী সংগঠনের নেতাকর্মীরা একাত্বতা প্রকাশ করে। মিছিলটি ঘাটাইলের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা চত্বরে এসে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

IMG_20140115_121406

মানববন্ধনের একাংশ। ছবি: টাঙ্গাইল বার্তা।

উক্ত মানবন্ধনে বক্তব্য দেন, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হাবিবুর রহমান খান, ঘাটাইল উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক বীরমুক্তিযোদ্ধা মুকবুল হোসেন, জাতীয় হিন্দু মহাজোটের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম মহাসচিব গৌরাঙ্গ বিশ্বাস, বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট ঘাটাইল উপজেলার শাখার সভাপতি এস.কে.সরকার, সাধারণ স্পাদক বিভাষ বিশ্বাস, ঘাটাইল উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের কার্যনির্বাহী কমিটির সম্মানিত সদস্য মোঃ আক্তার হোসেন এবং কার্যকরী কমিটির সদস্য প্রকাশ চন্দ্র সেন, বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু ছাত্র ও যুব পরিষদের ঘাটাইল উপজেলা শাখার সভাপতি কানাই রায়, সহ-সভাপতি রাজন চন্দ্র বসু, প্রচার সম্পাদক মিঠনু কর্মকার প্রমুখ।

এসময় বক্তরা জাতির বিবেকবান ব্যক্তিদের কাছে প্রশ্ন রেখে বলেন জাতীয় নির্বাচনের পর পরই কেন সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর ও মন্দিরে কেন হামলা হয়। আমাদের কি দোষ আমরা হিন্দু, আমরা সংখ্যালঘু? আমাদেরও পরিচয় আছে আমরা বাংলাদেশের নাগরিক সকলের মত সমান অধিকার আমাদেরও আছে। এ সময় দলমত নির্বিশেষে দুষ্কৃতীকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন। মানবন্ধন শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ কামাল হোসেন এর কাছে প্রধামন্ত্রী বরাবর একটি স্মারকলিপি পেশ করেন।

ফেসবুক মন্তব্য