ঢাকা বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ১৫, ২০১৮

Mountain View



কালিহাতীতে নববধূকে অপহরণের চেষ্টা, বাঁধা দেয়ায় সংখ্যালঘুর বাড়ি ভাংচুর, লুটপাট

Print Friendly, PDF & Email

নিজস্ব সংবাদদাতা, টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার নারান্দিয়া ইউনিয়নের দৌলতপুর গ্রামে নববধূকে অপহরণে বাধা দেয়ায় বৃহস্পতিবার রাতে এক সংখ্যালঘু পরিবারের বাড়ি ভাংচুর ও লুটপাট করেছে বখাটেরা। রাতেই কালিহাতী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

স্থানীয়রা জানায়, নারান্দিয়া ইউনিয়নের দৌলতপুর গ্রামের বলাই পালের বাড়ির পাশে নাট মন্দিরে মহানাম যজ্ঞানুষ্ঠান চলছিল। ওই অনুষ্ঠানে স্থানীয় সুধীর চন্দ্র সূত্রধরের ভাগ্নে, নববধূ রিপাসহ(ছদ্মনাম) ৬-৭ জন মেয়ে মহানাম যজ্ঞানুষ্ঠান থেকে রাত ১২ টার দিকে বাড়ি ফেরার পথে দৌলতপুর খেলার মাঠের পাশে কতিপয় বখাটে আক্রমণ করে। তারা ওই নববধূকে অপহরণের চেষ্টা করে। এ সময় সাথের মহিলারা বাধা দেয় এবং তারা দৌঁড়ে বাড়ি পৌঁছে।

এর কিছুক্ষণ পর নারান্দিায়া গ্রামের নিজাম উদ্দিনের ছেলে বিল্লাত(১৭), ওমর আলী ড্রাইভারের ছেলে সুজন(১৭), সোনা দন্দ্র দাসের ছেলে মানিক চন্দ্র দাস(১৬), আদাবাড়ি গ্রামের গুদু চন্দ্র বর্মণের ছেলে শিমুল চন্দ্র বর্মণসহ(১৭) ১০/১২জন বখাটে পুনরায় সুধীর চন্দ্র সূত্রধরের বাড়িতে হামলা চালায়।

তারা সুধীর চন্দ্র সূত্রধর, তার ভাই গোবিন্দ চন্দ্র সূত্রধর, বিমল চন্দ্র সূত্রধর, কার্তিক চন্দ্র সূত্রধর, রণি চন্দ্র সূত্রধর ও দুলাল চন্দ্র সূত্রধরের বসতঘরে ভাংচুর ও লুটপাট চালায়। এ সময় তারা ওই নববধূকে খোঁজ করতে থাকে। বাড়ির মহিলারা নববধুকে নিয়ে রক্ষা করে। ঘটনার ভয়াবহতায় স্থানীদের সাথে ওই বাড়ির পুরুষরা বাড়ি আসলে হামলাকারীরা চলে যায়।

বাড়ির অভিভাবক সুধীর চন্দ্র সূত্রধর জানান, হামলাকারীরা বাড়ি-ঘরে ব্যাপক ভাংচুর করেছে এবং ৯/১০ ভরি স্বর্ণালঙ্কারসহ মালামাল লুট করে নেয়।

কালিহাতী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. জহিরুল ইসলাম জানান, পুলিশ রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। মামলা দায়েরের পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ফেসবুক মন্তব্য