ঢাকা শনিবার, সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৮

Mountain View



বড়দিনের উৎসব আয়োজনে প্রস্তুত মধুপুর

Print Friendly, PDF & Email

এস.এম. সবুজ, মধুপুর প্রতিনিধি: খ্রিষ্টীয় বড়দিনের উৎসব আয়োজনে প্রস্তুত মধুপুর। প্রায় ৬ হাজার খ্রিষ্টীয় পরিবারে এ নিয়ে চলছে নানা আয়োজন।

উৎসবের আলোয় ভরিয়ে তুলতে এ এলাকার খ্রিষ্টানদের মধ্যে সাজ সাজ রব। বাড়ি থেকে দূরে অবস্থানকারি অনেকেই ইতোমধ্যে অবরোধ এড়াতে বাড়িতে চলে এসেছেন। উৎসব আয়োজনের শেষ পর্যায়ে খুঁটিনাটি কাজ ও নিমন্ত্রণ দিয়ে-নিয়ে সময় পার করছেন তারা। রাজনৈতিক অস্থিরতায় দিনটি পালনে বেশ প্রভাব পড়লেও প্রস্তুতিতে খ্রিষ্টীয়দের মধ্যে কোন ক্লান্তি নেই।।
দিনটি উপলক্ষ্যে খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের পরিবারগুলো বেথেলহামের আবহ সৃষ্টি করতে বাড়িতে বাড়িতে তৈরি করেছে প্রতীকি গোশালা। গোশালা স্থাপন, রঙিন কাগজ, ফুল ও আলোর ঝলকানিতে দৃষ্টিনন্দন ক্রিসমাস ট্রি এবং গির্জাও সাজানো হয়েছে। অপেক্ষা এখন শুধু কয়েক ঘন্টার।২৫ ডিসেম্বর শুরুর মুহুর্তেই প্রার্থনা দিয়ে খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের বড়দিনের আয়োজন চলবে।

জাঙ্গালিয়ার জনৈক তরুণ বিশ্বজিৎ সাংমা জানান, অনেক চরাই উৎরাইয়ে এক সপ্তাহ আগেই ঢাকা থেকে বাড়িতে এসেছি বড়দিন করার জন্য।

রাজনৈতিক অস্থিরতার প্রভাব পড়েছে ইদিলপুর গ্রামের মমি সাংমার বাড়িতে। আয়োজন- প্রস্তুতি ভালো থাকলেও একাধিক প্রিয় আপনজনের সান্নিধ্য পাবে না তারা। এনিয়ে তাদের মধ্যে কিছুটা দুঃখবোধ কাজ করছে।
সাইনামারির নূর সাংমাও জানান একইরকম কথা।

জয়েনশাহী আদিবাসী উন্নয়ন পরিষদের সভাপতি ইউজিন নকরেক ও জলছত্রের প্রবীণ চিসিম টাঙ্গাইল বার্তাকে জানান, বিরোধী জোটের চলমান অবরোধ কর্মসূচিতে বড়দিনের উৎসবে প্রভাব পড়বে। তারপরও আনন্দঘন পরিবেশে ও ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়েই উৎসব পালনের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।

তারা জানান, ওইদিন দেশের কল্যাণ,দেশের মানুষেরর শান্তির জন্য বিশেষ প্রার্থনা করা হবে।

এদিকে বড়দিন উপলক্ষ্যে স্থানীয় প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা সংস্থা বিশেষ নিরাপত্তার ব্যবস্থার প্রস্তুতি নিয়েছেন বলে জানা গেছে।

উল্লেখ্য, বড়দিন উপলক্ষ্যে মধুপুরের গড়াঞ্চলে খ্রিষ্টানদের পাশাপাশি অন্যান্য সম্প্রদায়ের অসংখ্য লোকের সমাগম ঘটে।

ফেসবুক মন্তব্য