ঢাকা শনিবার, সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৮

Mountain View



ভূঞাপুরে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকার অনশন, অতঃপর…

Print Friendly, PDF & Email

মুহা. জোবায়েদ মল্লিক বুলবুল, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি : টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশনের পর প্রেমিকা তানিয়া আক্তারের স্থান হয়েছে থানা হাজতে। পুলিশ বলছে, অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে তাকে থানা হেফাজতে আনা হয়েছে। তানিয়া আক্তার (১৬) নিকরাইল বেগম মমতাজ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী ও এসএসসি ফল প্রত্যাশী।

premika

এলাকাবাসী জানায়, ভূঞাপুর উপজেলার গোবিন্দাসী ইউনিয়নের কয়েড়া গ্রামের আবুল কাশেম মন্ডলের ছেলে শাহানশাহের সাথে আড়াই বছর আগে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে একই গ্রামের আজহার আলী শেখের মেয়ে নিকরাইল বেগম মমতাজ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী তানিয়া আক্তারের। প্রতিবেশি হওয়ায় প্রেমের সম্পর্ক দৈহিক সম্পর্কে রূপ নেয়। বেশ কিছুদিন ধরে তানিয়া বিয়ের জন্য প্রেমিক শাহানশাহকে চাপ দিচ্ছিল। কিন্তু শাহানশাহ তাতে রাজি না হওয়ায় ক্ষুব্ধ হয় তানিয়া। বুধবার সকাল ৬ টার দিকে প্রেমিক শাহানশাহের বাড়িতে বিয়ের দাবিতে অনশন শুরু করে তানিয়া। এসময় শাহানশাহ বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। তার পরিবারের লোকজন তানিয়াকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়ার জন্য নির্মম নির্যাতন চালায়। তারপরও তানিয়া সিদ্ধান্তে অনড় থাকে। ঘটনাটি জানাজানি হলে গ্রামে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে ভূঞাপুর থানা পুলিশ বুধবার রাত ১০টার দিকে প্রেমিক শাহানশাহের বাড়ি থেকে অনশনরত তানিয়াকে থানায় নিয়ে আসে। বর্তমানে সে ভূঞাপুর থানা পুলিশের হেফাজতে রয়েছে।

প্রেমিকা তানিয়া আক্তার জানায়, শাহানশাহ তাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সর্বস্ব কেড়ে নিয়েছে। এখন বিয়ে করতে অস্বীকার করছে। এটা সে কোনভাবেই মেনে নিতে পারছেনা।

ভূঞাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) ফজলুল কবির জানান, বিষয়টি নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছিল। অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে তানিয়াকে উদ্ধার করে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। উভয়পক্ষকে ডেকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ফেসবুক মন্তব্য