ঢাকা শুক্রবার, মে ২৪, ২০১৯

Mountain View



সময় এসেছে গর্জে উঠার উজানে বয়ে চলা রক্ত স্রোতে

Print Friendly, PDF & Email

জেনিস আকতার : বৈশাখের ঘটনায় আমি অনেকটা ক্ষুব্ধ হলেও কষ্ট লাগে নি , ভেতরটা জ্বলে গেলেও পুড়ে যায় নি । অনেক ইভেন্ট , ব্যানার ,মিটিং, মিছি্‌ল , আলোকসভা , জনসভা দেখলাম প্রযুক্তির কল্যাণে । অনলাইনে অনুপ্রেরণা প্রদান করলেও কখনো অফলাইনে যাওয়ার সময় সুযোগ হয়নি অফিস কাম ইউনিভার্সিটির সাথে ব্যক্তিগত ব্যস্ততায় ।

jenis

জেনিস আকতার

এতগুলো প্রাণের একসাথে এত আকুতিতে যখন কোন কাজ হয়নি তখন নিজের প্রতি রাগ হয়েছে , ঘৃণা হয়েছে দেশের প্রতি , পুলিশের প্রতি কিছু রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গের প্রতি । নিজের প্রতি রাগের যুক্তিকতা থাকলেও দেশের প্রতি ঘৃণা জন্মাতে পারিনি নিজের দেশ বলে আর এত অরাজকতা আর অনৈতিকতা মাঝেও নিজে নিজে কষ্ট পেয়েছি অনেকটা ক্ষোভে । কিছুই করতে পারছি না আমি ,তুমি আর আমরা কিছু জন কিছু পৈশাচিক নর জঘন্য বেহায়া কুত্তা আকৃতি মানুষ রুপী জানোয়ারদের ভীড়ে । শুধু ক্ষোভে কাতরাতে পেরেছি আর মুখে এক দলা তেতো থুথু জমে থেকেছে । ভেবেছি এই সব ইভেন্ট , ব্যানার ,মিটিং, মিছি্‌ল , আলোকসভা , জনসভা করে লাভ ? সময় আর টাকা নষ্টই মনে হয়েছে ।

সেদিন থেকেই নিজের প্রতি নিজের অন্যরকম এক সাহসে বুক বেঁধে এগিয়ে গিয়েছি বাঁধ ভাঙ্গা জোয়ারে । মনে হয়েছে আমি হয়তো বারুদ হতে পারিনি, কিন্তু দিয়াশলাই হতে পেরেছি , দিয়াশলাই হয়ে বার বার পুরুষ মানুষের লোভনীয় দৃষ্টি আর স্পর্শে জ্বলে উঠছি ভেতর থেকে । এই জ্বলা শিখা চিরন্তন ।

যেদিন শুনলাম রাজধানীতে গারো মেয়ে ধর্ষণ হয়েছে সেদিন ক্ষুব্ধ হইনি , জ্বলে যাইনি বরং কষ্ট পেয়েছি আর পুড়ে গেছে ভেতরটা । আত্মদহনে পুড়েছি অনন্তকালের সাক্ষী হয়ে ভেতরের আত্মা । একটা মানুষের আত্মা ।

আজ দুপুরে যখন অফিস করে ক্লান্ত আর গায়ে প্রচন্ড জ্বর তখন ক্যান্টিনের সময় টিভির দিকে চোখ পড়তেই টিভি স্ক্রলে দেখলাম তিন জন ধর্ষক আটক তাও ভাগ্যিস র‍্যাবের হাতে । ভাবলাম দিন বুঝি পাল্টালো কিন্তু সময়ের দাবীতে সময় কি ধরে রাখা যাবে ??? এই প্রশ্ন শুধু প্রশ্নই থাকবে কালের অন্তরালে ।

বিচার কি সুষ্ঠু হবে ?? নাকি আইনের হাত গলে বেরিয়ে যাবে বরফ পানি হয়ে ? কিংবা সিগারেটের মত ধুঁয়া হয়ে উড়বে বাংলার আকাশে আর আমরা শুধু ছাই দেখবো , কেবল কালো ছাই । ভীষণ কালো । বিদঘুটে কালো ।

আমি আর আমরা চাই তাদের লিঙ্গ, একটি অণ্ডকোষ, একটি চোখ এবং নাক কর্তন করে বাংলার ধর্ষক হিসাবে মডেল করে রাখা হোক ।

পরিশেষে একটাই কথা বলার সরকার যদি উপযুক্ত বিচার না করে ছেড়ে দেয় তবে আমরা জনতা ছাড়বো না , যুদ্ধ চলবে রাজ পথে , সময় এসেছে দেখিয়ে দেবার …গর্জে উঠার…। সময়ের বিরুদ্ধে ধর্ষকদের দর্শন আমরাই সমূলে ভাঙ্গতে পারি প্রতিবাদের উজান বয়ে যাওয়া রক্ত স্রোতে ।

লেখক: কবি ও সাহিত্যিক

ফেসবুক মন্তব্য